ঘু`মের `ট্যাব`লেট খা`ইয়ে সবা`ইকে কু`পিয়ে হ`ত্যা করে ছো`ট ভাই

পারিবারিক দ্ব`ন্দ্বের প্রতি`শোধ নিতেই এনা`র্জি ড্রিংক স্পি`ডের স`ঙ্গে ঘু`মের ট্যা`বলেট খাই`য়ে বড় ভাই, ভাবি, ভাই`পো ও ভা`ইজিকে চাপা`তি দিয়ে কুপি`য়ে হ`ত্যা করা`র কথা স্বী`কার করে`ছে তার `ছোট ভাই রায়`হানুল ইসলাম।তবে শিশু মা`রিয়া কা`উকে চিন`বে না বলে তাকে হ`ত্যা করে`নি সে। বুধ`বার (২১ অক্টোবর) বি`কালে সাত`ক্ষীরা সি`আইডি অফি`সে সংবাদ স`ম্মেলনে এসব

তথ্য জা`নান সিআইডির খুল`না বিভা`গীয় অতি`রিক্ত ডিআ`ইজি শেখ ওম`র ফা`রুক।প্রেস ব্রিফিং`য়ে তিনি ব`লেন, বেকার থাকা ছোট ভাই বা`ড়িতে বসে বসে খাও`য়া দাওয়া ক`রায় বড় ভাবি তা`কে বকা`বকি করে। মন খা`রাপ অব`স্থায় ঘরে বসে রা`তে টিভি দে`খার সময় অকা`রণে বি`দ্যুৎ বিল উঠছে বলে বড় ভা`ই শাহি`নুরও তা`কে ব`কা দেয়।

তখন সে তাদের হত্যা`র পরি`কল্পনা করে। এরপর স্পি`ডের স`ঙ্গে ঘু`মের ট্যাব`লেট মিশিয়ে রা`তে সবা`কে খাওয়া`য়।সবাই ঘু`য়ে পড়`লে` গভী`র রাতে ঘরে থা`কা চাপা`তি নিয়ে তোয়া`লে পরে গাছ বেয়ে ছা`দের ওপর দিয়ে ঘরের মধ্যে প্রবে`শ করে প্রথ`মে বড় ভাই শাহি`নুরকে কু`পি`য়ে হ`ত্যা করে। তার হাতের শিরা কে`টে দেয়।এরপর ভাবি ছাবিনাকে কু`পিয়ে হ`ত্যা` করে।

এসময় শব্দে ভাই`পো জি`হান ও ভাতি`জি তাছ`নিম জেগে গেলে তাদে`রকেও কু`পিয়ে হ`ত্যা করে সে। পরে সে বাড়ির পা`শের পুকু`রে চা`পাতি ফেলে দিয়ে গোস`ল করে ঘুমা`তে যায়। রায়`হানুলের স্বীকা`রোক্তি`তে বাড়ির পাশের পুকুর থেকে বুধ`বার হত্যা`য় ব্যবহৃত চা`পাতি জ`ব্দ করা হয়েছে। রায়`হানুলের ঘর থেকে তো`য়ালেও জব্দ করা হয়ে`ছে।

বুধ`বার বিকালে রায়হানুলকে ১৬৪ ধারায় জ`বানব`ন্দি নেয়ার জন্য আ`দাল`তে` পাঠানো হয়েছে বলে জানান অতি`রিক্ত ডিআইজি। প্রেস ব্রিফিংএ সিআইডির বিশেষ পু`লিশ সুপার আ`নি`চুর রহ`মান উপস্থিত ছিলে`ন।উল্লেখ্য, গত ১৫ অক্টো`বর ভোর রাতে সাতক্ষী`রার কলারো`য়ার খ`লশি গ্রামে` মাছ ব্য`বসা`য়ী শাহি`নুরস`হ পরিবারের ৪ সদ`স্যকে কু`পিয়ে ও গলাকেটে হত্যা করা হয়।

রা`তে শাহিনুলের শ্বাশু`ড়ি ময়`না খাতুন বাদি হয়ে কলা`রোয়া থা`নায় অজ্ঞা`তদের আসা`মি করে হ`ত্যা মাম`লা দায়ের করেন। ত`দন্তের দায়িত্ব দেয়া হয় সি`আইডি পুলি`শকে।হ`ত্যার দিনই জি`জ্ঞাসাবাদের জন্য আট`ক করা হয় নি`হতের ছোট ভাই রায়`হানুল`কে। পরের দিন রায়`হানুলকে হ`ত্যা মা`মলা`য় গ্রে`প্তার দেখিয়ে আ`দালতে`র মাধ্য`মে কারা`গারে পা`ঠানো হয়। পরে রা`য়হানুল`কে পু`লিশে`র রি`মান্ডে নেওয়া হয়। এ ঘট`নায় আরো ৩ জনকে গ্রে`ফতা`র করা হয়েছে।

Check Also

হ্যা আমার স্ত্রীর অতীতে সংসার হয়েছিলো, সব জেনেশুনেই বিয়ে করেছি

নিজের স্ত্রী ও সন্তানকে নিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়েছেন ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকী নাজমুল …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *